স্ত্রী হত্যায় কনস্টেবলের যাবজ্জীবন

প্রকাশ : ০১ ডিসেম্বর ২০১৬, ০০:০০

আদালত প্রতিবেদক
ADVERTISEMENT

উনিশ বছর আগে ময়মনসিংহ ভালুকা উপজেলার জাটিয়া গ্রামে গৃহবধূকে হত্যা মামলায় স্বামীকে যাবজ্জীবন কারাদ-ের আদেশ দিয়েছেন আদালত। দ-প্রাপ্ত রফিকুল ইসলাম ঘটনার সময় পুলিশ কনস্টেবল হিসেবে ঢাকার রাজারবাগ পুলিশ লাইনে কর্মরত ছিলেন। তার উপস্থিতিতেই গতকাল বুধবার ঢাকার এক নম্বর দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক শাহেদ নূরউদ্দিন রায় ঘোষণা করেন। রাষ্ট্রপক্ষের বিশেষ কৌঁসুলি আবু আবদুল্লাহ ভূঁইয়া এ কথা জানান। রায়ে রফিকুলের ভাই, বোন এবং চাচাকে খালাস দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি। রায় ?শুনে আসামির কাঠগড়ায় দাঁড়ানো রফিকুল কান্নায় ভেঙে পড়েন। রায়ের বিরুদ্ধে তিনি আপিল করবেন বলেও জানান।

রায়ের বিবরণে বলা হয়, ১৯৯৭ সালের ৬ মে রাজারবাগ পুলিশ লাইন থেকে ছুটি নিয়ে গ্রামের বাড়ি যাওয়ার পর স্ত্রী রেহানা আক্তার বকুলকে গলা টিপে হত্যা করেন রফিকুল ইসলাম। পরে ঘটনাটিকে আত্মহত্যা বলে চালানোর চেষ্টা করেছিলেন তিনি। জমি লিখে নেওয়াকে কেন্দ্র করে ঝগড়ার একপর্যায়ে রফিকুল স্ত্রীকে হত্যা করেন বলে উল্লেখ করা হয়েছে বিবরণে। রেহানাকে হত্যার ঘটনায় তার মা সবুরা খাতুন ভালুকা থানায় মামলা করেছিলেন।

"