জঙ্গিবাদের সমাধান সাংস্কৃতিক আন্দোলন : জাফর ইকবাল

প্রকাশ : ১৩ আগস্ট ২০১৬, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক
ADVERTISEMENT

লেখক-অধ্যাপক মুহম্মদ জাফর ইকবাল বলেছেন, কম বয়সী ছেলেগুলো যখন নিজেকে নিয়ে, দেশ ও সমাজকে নিয়ে চিন্তা করবে, তখন তারা ভাবছে অন্য ধর্মাবলম্বীদের হত্যা করে তারা পরকালে বড় জায়গায় যাবে। আমার মাথায় এসব চিন্তাধারা ঢোকে না। এ মুহূর্তে সাংস্কৃতিক আন্দোলনই হতে পারে এর সত্যিকারের সমাধান। সাংস্কৃতিক কর্মকা-ে যুক্ত মানুষ হৃদয়ে শান্তি পায়, চলে যায় অন্য এক জগতে।

গতকাল শুক্রবার রাজধানীর শিল্পকলা একাডেমিতে ‘জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে সাংস্কৃতিক জাগরণ’ শীর্ষক আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা বলেন। জঙ্গিবাদ মোকাবিলায় সাংস্কৃতিক কর্মকা- বাড়ানোর ওপর গুরুত্ব আরোপ করে জাফর ইকবাল বলেন, স্কুল-কলেজের ছেলেমেয়েদের আমাদের বোঝাতে হবে- এ দেশের লাখো মানুষ জীবন দিয়েছিল। মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ছিল প্রতিটি ধর্মের মানুষ পাশাপাশি অবস্থান করবে, ধর্মীয় সহিষ্ণুতা বজায় থাকবে প্রতিটি নাগরিকের মধ্যে।

দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা শ’খানেক বাউল শিল্পী ছিলেন এই সভায়। তাদের জীবনধারা, ভাববাদের কথা উল্লেখ করে বাউলদের ওপর হামলা-নির্যাতনের তীব্র নিন্দা জানান জাফর ইকবাল। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি কণ্ঠশিল্পী ও সংসদ সদস্য মমতাজ বেগমও বাউলদের ওপর অত্যাচার, নিপীড়নের নিন্দা জানান। তিনি বলেন, আজকের এই জঙ্গিবাদ একদিনে কিংবা একমাসে তৈরি হয়নি। ১৫ অগাস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যার মধ্য দিয়ে জঙ্গিবাদী শক্তিটি তিলতিল করে গড়ে উঠেছে।

অনুষ্ঠানে বক্তব্যের পাশাপাশি কবিতা পাঠ করেন কবি নির্মলেন্দু গুণ, কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা, সংসদ সদস্য ও কবি কাজী রোজী, কবি মুহাম্মদ সামাদ, শাহজাদী আঞ্জুমান আরাসহ আরো অনেক কবি।

"