বগুড়ায় প্রাণ গেল শিশুছাত্রের বাবা গুরুতর আহত

সিরাজগঞ্জ-ঝিনাইদহে দুজন হতাহত

প্রকাশ : ২৯ নভেম্বর ২০১৬, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক
ADVERTISEMENT

বগুড়ায় বাসচাপায় নিহত হয়েছে এক শিশুছাত্র। এর ঘটনায় তার বাবা সবুজ মিয়া গুরুতর আহত হয়েছেন। এছাড়া সিরাজগঞ্জে এক বৃদ্ধ নিহত এবং ঝিনাইদহে গুরুতর আহত হয়েছেন এক ব্যাংক কর্মকর্তা। আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর।

বগুড়া : বগুড়ায় বাসের চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী স্কুলছাত্র সোয়াইব হোসেন (১০) নিহত হয়েছে। এর ঘটনায় তার বাবা সবুজ মিয়া গুরুতর আহত হয়েছেন। গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় বগুড়া শহরের দ্বিতীয় বাইপাস সড়কের বড়িয়া বটতলা মোড়ে এ ঘটনা ঘটে। তাদের বাড়ি বগুড়া সদরের সাবগ্রাম চানপাড়া গ্রামে। নিহত সোয়াইব শহরের ড. নূর ওয়ার্ল্ড স্কুল এন্ড কলেজের জুনিয়র কেজি শ্রেণীর ছাত্র।

সদর থানার নারুলী ফাঁড়ির টিএসআই সফিকুল ইসলাম জানান, বাবার মোটরসাইকেলে চেপে স্কুলে যাচ্ছিল সোয়াইব। রাস্তা পার হওয়ার সময় রংপুর থেকে ঢাকাগামী হানিফ এন্টারপ্রাইজ নামের একটি বাস তাদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই সোয়াইব মারা যায়। এ সময় মোটরসাইকেল চালক সবুজ গুরুতর আহত হন। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে পাঠায়। পিতা-পুত্র মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়লেও সেটি বাসের সাথে আটকে যায়। চালক বাসটি না থামিয়ে আরো দ্রুত চালাতে থাকেন। একপর্যায়ে দুর্ঘটনাস্থল থেকে প্রায় ১ কিলোমিটার দূরে বাঁশবাড়িয়া নামক এলাকায় বাসটি থেমে যায়। এ সময় মোটরসাইকেলের ট্যাঙ্ক বিস্ফোরিত হয়ে আগুন ধরে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিভিয়ে ফেলে। পুলিশ বাসটি আটক করলেও চালক পালিয়ে গেছে।

ড. নূর ওয়ার্ল্ড স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রতিষ্ঠাতা ড. নুর হোসেন জানান, নিহত স্কুলছাত্র সোয়াইব হোসেন তার প্রতিষ্ঠানের জুনিয়র কেজি শ্রেণীর ছাত্র। গতকাল বেলা সাড়ে ১১টা থেকে তার ক্লাস ছিল।

এদিকে আমাদের সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, বঙ্গবন্ধু যমুনা সেতু পশ্চিম সংযোগ সড়কের সিরাজগঞ্জে কড্ডার মোড়ে বাসচাপায় জুড়ান আলী (৬০) নামে এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছেন। তার বাড়ি সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলায়। গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ৯টায় সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার কড্ডার মোড়ে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

বঙ্গবন্ধু যমুনা সেতু পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. দাউদ জানান, জুড়ান আলী তাড়াশে যাওয়ার জন্য কড্ডার মোড়ে বাসের অপেক্ষা করছিলেন। এসময় ঢাকাগামী যাত্রীবাহী একটি বাস তাকে চাপা দিলে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান।

অপরদিকে আমাদের ঝিনাইদহ প্রতিনিধি জানান, সদর উপজেলা আঠারো মাইল নামক স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ফাত্তাউল ইসলাম (৪৫) নামে এক ব্যাংক কর্মকর্তাকে মুমুর্ষ অবস্থায় ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। গতকাল সোমবার সকাল ৯টার দিকে তিনি দুর্ঘটনায় আহত হলে বিকেলে হেলিকপ্টারযোগে তাকে ঢাকার অ্যাপোলো হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। আহত ফাত্তাউল ইসলাম খুলনার সোনাডাঙ্গা এলাকার আব্দুল বাকির ছেলে এবং ডাকবাংলা ইসলামী ব্যাংক শাখার জুনিয়র ইউনিট অফিসার হিসাবে কর্মরত।

ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালের অর্থোপেডিক্স বিশেষজ্ঞ ডা. জি এ মুনির জানান, আহত ফাত্তাউলের অবস্থা আশংকাজনক। দুর্ঘটনায় তার ডান পা বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

"