দাম্পত্য সম্পর্ক বাঁচাতে ফোন দূরে রাখুন

প্রকাশ : ২৯ নভেম্বর ২০১৬, ১৭:০৩

অনলাইন ডেস্ক
ADVERTISEMENT

সবার হাতে এখন স্মার্ট ফোন। সারাদিন ফেসবুকে, হোয়াটস অ্যাপে খুটখাট। এই জন্যই প্রতিদিন আহত হচ্ছে সম্পর্ক, ভেস্তে যাচ্ছে দাম্পত্য সম্পর্ক। নিজেকে এবং নিজের সাধের সম্পর্ক বাঁচাতে তাই ফোনের ব্যবহার একটা সীমার মধ্যে রাখাই উচিত

সময় ঠিক করুন: একটা নির্দিষ্ট সময়ের বেশি ফেসবুক বা হোয়াটস অ্যাপে সময় না কাটানোই ভাল। রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে ফেসবুকে কিছুটা সময় কাটানো আপনার অভ্যাস। সে ঠিক আছে! কিন্তু একটা সময় তো ঠিক করতে হবে। রাতে নির্দিষ্ট সময় ঠিক করে নিন, যতক্ষণ আপনি স্মার্টফোনের সঙ্গে সময় কাটাবেন। ঘড়ির কাটা পেরিয়ে গেলেই আর ফোনের দিকে তাকিয়ে বসে থাকবেন না।

আপনার পাশে কেউ একজন আছে: আপনার পাশে কেউ একজন বসে বা শুয়ে আছে, সেটা খেয়াল রাখুন। কারণ আপনি ভুতের মত রাতে ঘরের আলো বন্ধ করে একমনে ফেসবুক করে যাচ্ছেন আর উল্টোদিকের লোকটা একা একা বোর হয়ে ঘুমিয়ে পড়ছে। এটাই যদি রোজকার অভ্যাস হয়ে দাঁড়ায় তাহলে তো মুশকিল। একটু নিজের এই ইন্টারনেট দুনিয়ার আসক্তি থেকে বেরিয়ে আসুন। পাশে যখন কেউ থাকবে তখন ইন্টারনেটের বন্ধুদের একটু দূরে রাখলে ক্ষতি কি!

ফোনটা দূরে রাখুন: আচ্ছা, সারাদিন তো ফোনে খুটখাট করে চলেছেন। এখন একটু ফোনটা দূরে রাখুন না। সারাদিন চার্জ দেওয়া হয়নি, যান ফোনটা চার্জে দিয়ে রাখুন। বিছানায় শুয়েও ফোনটা পাশে রাখার মানে হয়না। অ্যাপের নোটিফিকেশন যদি রাতে বিরক্ত করতে থাকে তাহলে কিন্তু তাল কাটবে বার বার।

ফোনের ইন্টারনেট বন্ধ রাখুন: ফোনের ইন্টারনেট কানেকশনটা এখন বন্ধ রাখাই ভাল। মানে রাতেও ফোনের ইন্টারনেট চালু রেখে তো লাভ নেই। তখন একান্তে সময় কাটানোর কাল। সেই সময়টায় ফোন বন্ধ করে রাখাই উচিত। কিন্তু কাজের জন্য যদি ফোন চালু করে রাখতেই হয়, তাহলেও ডেটা কানেকশন অফ রাখাই মঙ্গল।